প্রতিদিনের খবর

৩৮তম বিসিএসের প্রিলিমিনারি ২৯ ডিসেম্বর

আগামী ২৯ ডিসেম্বর মাসে ৩৮তম বিসিএসের প্রিলিমিনারি পরীক্ষা নেয়া হতে পারে বলে জানিয়েছে বাংলাদেশ সরকারি কর্মকমিশন (পিএসসি)।

বৃহস্পতিবার মুঠোফোনে প্রতিষ্ঠানটির চেয়ারম্যান ড. মোহাম্মদ সাদিক এ তথ্য জানিয়েছেন। তিনি বলেন, ‘আমরা ৩৮তম বিসিএসের প্রিলিমিনারি পরীক্ষা ডিসেম্বর নেয়ার চেষ্টা করছি। কারণ আমাদের হাতে আরও দুইটি পরীক্ষা আছে। আমাদের ৩৬তম বিসিএসের চূড়ান্ত পরীক্ষার ফল এবং ৩৭তম বিসিএসের লিখিত পরীক্ষার ফল দিতে হবে।’

এক প্রশ্নের জবাবে ড. সাদিক বলেন, ‘৩৬তম বিসিএসের চূড়ান্ত ও ৩৭তম বিসিএস লিখিত পরীক্ষার ফলাফল অক্টোবর মাসে দেয়ার বিষয়ে প্রাথমিক সিদ্ধান্ত হয়েছে।’ তিনি জানান, ‘৩৬তম বিসিএসের চূড়ান্ত এবং ৩৭তম বিসিএসের লিখিত পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশের পর ৩৮তম বিসিএসের প্রিলিমিনারি পরীক্ষা গ্রহণের পরিকল্পনা করা হয়েছে।’

পিএসসি চেয়ারম্যান জানান, ‘৩৮তম বিসিএসে রেকর্ড সংখ্যক পরীক্ষার্থী আবেদন করায় প্রিলিমিনারি পরীক্ষা নিতে বিলম্ব হচ্ছে। বিশেষ করে বিপুল পরীক্ষার্থীর পরীক্ষা নেওয়ার স্থান, প্রশ্নপত্র ও উত্তরপত্র ছাপানোসহ সব মিলে বিশাল এক কর্মযজ্ঞ।’ তবে ডিসেম্বরর মধ্যেই ৩৮তম বিসিএসের প্রিলিমিনারি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে বলে জানান ড. সাদিক।

গত ২০ জুন ২৪ ক্যাডারে ২ হাজার ২৪টি শূন্য পদে নিয়োগের সুপারিশ করতে ৩৮তম বিসিএসের সার্কুলার জারি করে পিএসসি। এই বিসিএসে প্রশাসন ক্যাডারে ৩০০, পুলিশে ১০০সহ সাধারণ ক্যাডারে ৫২০টি, কারিগরি ও পেশাগত ক্যাডারে ৫৪৯টি এবং শিক্ষা ক্যাডারে ৯৫৫টি পদে নিয়োগের জন্য সুপারিশ করা হবে।

বিজ্ঞপ্তি প্রকাশের পর এই বিসিএসে জন্য ৩ লাখ ৮৯ হাজার ৪৬৮ জন প্রার্থীর আবেদন পায় পিএসসি। গত ১০ জুলাই থেকে আবেদন গ্রহণ শুরু হয়। শেষ হয় গত ১০ আগস্ট।

***এই ধরনের আরও টিপস-ট্রিকস, অফার এবং শিক্ষামূলক পোস্ট পেতে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিন***

বিসিএস পরীক্ষায় ২০০ নম্বরের বাংলাদেশ ইতিহাস থেকে ৫০ নম্বর কমিয়ে আনা হয়েছে। সেখানে মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস যুক্ত করে ৫০ নম্বর নির্ধারণ করার সিদ্ধান্ত হয়েছে। বাংলার পাশাপাশি এবার ইংরেজিতেও প্রশ্ন প্রণয়ন করা হবে। সাত বিভাগের পাশাপাশি এবার নতুন বিভাগ ময়মনসিংহেও পরীক্ষা নেওয়া হবে।

নতুন পোস্ট’সমূহ

To Top