অনলাইনে আয়

ফ্রীতে বিটকয়েন আয় করুন এড এ ক্লিক করে প্রতিমাসে ২০০০৳ ডলার ১০০% ফ্রী

কিভাবে একাউন্ট তৈরি করবেন:

একাউন্ট তৈরি/ওপেন করা খুব সহজ। প্রথমত আমার এই পোস্ট ভালভাবে পড়ে নিন। অতপর পোস্টের টিউটোরিয়াল অনুসরন করে বাকি কাজ করলেই হবে।

১। প্রথমে এই লিঙ্কে   যান > এরপর নিচের মত একটা পেজ  আসবে

২। এখানে Name অংশে আপনার নামের ১ম এবং শেষ অংশ দিন> Email  এর বক্সে আপনার মেইল অ্যাড্রেস এবং> Password  এর বক্সে আপনারপাসওয়ার্ড লিখুন> এবার সবশেষে টিক মার্ক দিয়ে Create Bitcoin Wallet  লিঙ্কে ক্লিক করুন।

৩। এরপর আপনাকে ইমেইল অ্যাড্রেস ভেরিফাই করেত বলবে। আপনার ইমেইল অ্যাড্রেসে যান এবং VERIFY MY EMAIL ADDRESS-এ ক্লিক করুন। নতুনকোন উইন্ডো ওপেন হলে ক্লোজ করে দিন। অতপর এই সাইটে পূনরায় প্রবেশ করে  লগইন করুন আপনার ইমেইল ও পাসওয়ার্ড দ্বারা (রেজি: করার সময়ে যাহাব্যবহার করেছিলেন)। যদি লগইন করতে পারেন তাহলে বুঝবেন সঠিকভাবে একাউন্টটি ক্রিয়েট করতে পেরেছেন।

(লগইন করলে নিচের মত একটা পেজ আসবে)

৪। এখান থেকে Tools (1) থেকে Bitcoin Addresses এর উপরে ক্লিক করলে নিচের মত একটা পেজ আসবে। এরপর Create New Address (2) করে কিছুক্ষণঅপেক্ষা করুন। নিচে একটা অ্যাড্রেস তৈরি হবে (3)। এটাকে সেভ করে অথবা কপি করে রাখুন নোটপ্যাডে, পরে কাজে লাগবে মূলত বিট কয়েন সাইট হতে আয় এবংপ্রতিবার লগইন করার জন্য।

অথবা অ্যাকাউন্ট এ গিয়েও আপনার Permanent বিটকয়েন অ্যাড্রেসটি পেতে পারেন, চিত্রে দেখুন

৫। চাইলে একাউন্টটি আপনি ভ্যারিফাইড করে নিতে পারেন মোবাইল নং দ্বারা। এই জন্য একাউন্ট লগইন করে Verify a Phone অপশনে ক্লিক করুন। একটি বার্তাআপনার মোবাইলে যাবে। সেখানের প্রেরিত কোডটি এখানে ইনপুট করে দিলেই হবে। এই ক্ষেত্রে কয়েন-বেজ একাউন্টেরনিরাপত্তা থাকবে। অবশ্য ব্যাংক একাউন্টভেরিফাইড কিংবা যুক্ত করার অপশন আসবে, আপাতত এটি করার প্রয়োজন নাই।

বিট কয়েন আয়ঃ

এই সাইট থেকে আয় করার পদ্ধতি মোটামুটি এটিই। খুবই সহজ । ঠিক একই রকম অনেক সাইট রয়েছে। ঐ গুলার কাজ এই সাইট এর মতোই। আমি বেছেবেছে ঐ সাইট গুলার লিঙ্ক দিবো যে সাইট গুলা থেকে আমি পেমেন্ট পাইছি। sites list is in my blog you can check that if you wish .

নিয়মাবলী:

প্রথম তো বিট কয়েন গেটওয়ে একাউন্ট তৈরি করলেন অনেকটা পেইজার মত। এবার তো আয় করতে হবে। আসলে বিট কয়েন নিয়ে আয় করার অনেক সাইটদেখেছি। কোনটিই আমার তেমন পচ্ছন্দ হয়নি। যে কয়টি সাইট দেখেছি অনেকটাই স্ক্যাম। অর্থাত বিট কয়েন নাম দিয়ে ব্যবসার ফায়দা লুটছে। তাছাড়া নিজেপর্যবেক্ষনে অআছি। যদি তেমন ভাল সাইট পাই তাহলে পরবর্তী টিউনে জানাব। তবুও মন খারাপের কোন কারন নাই। ফ্রিভাবে বিট কয়েন পাবার জন্য আপনাদেরএমন একটি সাইটের লিংক দিব যেখানে প্রতি ঘন্টাতে বিট কয়েন পাবেন কোন রকম কাজ ছাড়াই!!

১। প্রথমে এই লিঙ্কে যান

নিচের মত একটা পেজ আসবে উক্ত কাজ গুলো করুন তথারুপ

Your Bitcoin Address  এ কিছুক্ষণ আগে যে বিটকয়েন অ্যাড্রেস তৈরি করলেন সেটা দিন।

ব্যাস এরপর GO  বাটনে ক্লিক করুন নিচের মত আসবে ইমেইল আইডি দিয়ে ক্যাপচা পূরণ করে Sing Up বাটনে ক্লিক করুন

তার পর নিচের মত দেখাবে

 

চেক ভেরিফিকেশনে ক্লিক করে করুন

এখন লগইন  করে এড সাফ করূন

এড এ ক্লিক করুন

তার পর ক্যাপচা পুরণ করে সাবমিট বাটনে  ক্লিক করুন এভাবে সবগুলো করতে হবে

তার পর আপনার একাউন্টে জমা দেখাবে

এভাবে প্রতিদিন কমপক্ষে ৩৩ টি এড আসবে অার প্রতিদিন এডগুলো দেখলে আয়   হবে।

পেমেন্টঃএবার আসি পেমেন্টের কথায়। এটা  ১০০% পে করে কারন একাউন্ট করার বছরের মধ্যে প্রায় ১০০ বারের বেশী পে পেয়েছি। তাছাড়া আমার বন্ধুরা অনেকেই এটির সাথে সম্পর্ক তাদের অনেকেই প্রায় ৩-৪ বারের বেশী পেমেন্ট পেয়েছে। এরা প্রতি সোমবার পে করে। আপনার একাউন্ট Balance যদি 0.05000000 বিটকয়েনের বেশি হয় তাহলে সেটাঅটোমেটিকভাবে সোমবারে আপনার একাউন্টে চলে যাবে। আপনার কিছু করতে হবে না।যেমন এই টিউনটি করেছি আমি নিজে পরীক্ষা করে।  যেহেতু ফ্রিল্যান্স ও ব্লগ করার জন্য আমাকে মাঝেমধ্যে নেটে ১০-১৪ ঘন্টা থাকতে হয়। তাইএই সুযোগটা কাজে লাগাই। তেমন আপনিও লাগাতে পারেন। কেননা-

১। অন্য কোন পিটিসি সাইটের মত সময় নষ্ট হচ্ছে না। কিংবা ক্লিক করতে হচ্ছেনা। ফ্রিল্যান্স করার সাথে
সাথেই উক্ত কাজটি করতে পারবেন। শুধুমাত্র প্রতি ঘন্টাতে ক্যাপচা পূরন করলেই হলো। অনেক ফ্রিল্যান্সার গণ বিট কয়েন হতেও আয় করছেন।

২। কোন কাজ না করলেও একাউন্ট ডিলেট কিংবা নষ্ট হবার ভয় নাই।

৩। যরা অল্প মেগাবাইট ব্যবহার করছেন। তারা প্রতি ঘন্টাতে এই সাইটে প্রবেশ করে কাজ শেষ হবার পর
নেট কানেকশন বন্ধ করে দিন। অতপর পূনরায় একই কাজ করুন। মূল কথা সর্বদা নেট কানেকশন অযথা চালু করার প্রয়োজন নাই।

৪। এখনো যেহেতু ইউজার কম। সেহেতু এই সাইট বোধ হয় ফ্রিভাবে বিট কয়েন দিচ্ছে। পরবর্তীতে হয়ত কি হবে
কে জানে! তাই মনে হয় সময় থাকতে বিট কয়েন অর্জন করতে সমস্যাটা কোথায়?

৫। এখানে কোন ইনভেস্ট, ডোনেট এমন কিছুর শর্ত নাই।

পোস্টটি ভাল লাগলে কমেন্ট বক্সে কমেন্ট করে আমাকে উৎসাহিত করুন এবং এই রকম আরো তথ্য পেতে লাইক দিন।

***এই ধরনের আরও টিপস-ট্রিকস, অফার এবং শিক্ষামূলক পোস্ট পেতে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিন***

ধন্যবাদ সবাইকে।

আপনার ফেসবুক একাউন্ট ব্যবহার করে মতামত প্রদান করতে পারেনঃ

You must be logged in to post a comment Login

নতুন পোস্ট’সমূহ

To Top